1. nannunews7@gmail.com : admin :
February 28, 2024, 3:26 am

শেখ হাসিনার কারামুক্ত দিবসে কুষ্টিয়ায় জেলা আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা

  • প্রকাশিত সময় Sunday, June 11, 2023
  • 70 বার পড়া হয়েছে

গণতন্ত্রকে বন্দি করার জন্য জননেত্রী শেখ হাসিনাকে বন্দি করা হয়েছিল সদর উদ্দিন খান

কাগজ প্রতিবেদক আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার

কারামুক্তি দিবসে কুষ্টিয়ায় আলোচনা সভা দোয়া মাহফিলের আয়োজন করেন জেলা আওয়ামী লীগ। গতকাল রবিবার বিকেল ৪টার দিকে কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেনজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব সদর উদ্দিন খান পরিচালনা করেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আজগর আলী।এসময় অন্যান্যর মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ডাঃ এফ এম আমিনুল হক রতন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বাবু স্বপন কুমার ঘোষ। সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এ্যাড. আক্তারুজ্জামান মাসুম, সাধারণ সম্পাদক রেজাউল হক। সদর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আবু তৈয়ব বাদশা, সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান মিজু, জেলা পরিষদ সদস্য জহুরুল ইসলাম, জেলা ছাত্র লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জহুরুল ইসলাম মুক্তার প্রমুখ। আলোচনা সভায় আলহাজ্ব সদর উদ্দিন খান বলেন,

ওয়ানইলেভেনেরসরকারের সময় শেখ হাসিনা দীর্ঘ ১১ মাস কারাভোগের পর ২০০৮ সালের এই দিনে সংসদ ভবন চত্বরে স্থাপিত বিশেষ কারাগার থেকে মুক্তি পান। তিনি বলেন, প্রকৃতপক্ষে গণতন্ত্রকে বন্দি করার জন্য, গণতন্ত্রের

পায়ে শেকল পরানোর জন্যই বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনাকে ২০০৭ সালে ১৬ জুন গ্রেফতার করা হয়েছিল। সুতরাং, আজকের এই দিনটি শুধু ব্যক্তি শেখ হাসিনার মুক্তি দিবস নয়, গণতন্ত্রের মুক্তি দিবস। আজকের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রাষ্ট্র ক্ষমতায় না আসলে বাংলাদেশ উন্নত সম্মৃদ্ধে এগিয়ে যেতো না।

উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে আগামী নির্বাচনে দলমত নির্বিশেষে নৌকাকে

বিজয়ী করতে সকল নেতাকর্মীকে কাজ করার আহব্বান জানান। এসময় আজগর আলী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান অন্যায়ের কাছে মাথানত করেন নাই,

জনগণের জন্য বঙ্গবন্ধুর জীবন ছিলো নিবেদিত। তেমনি তার যোগ্য কন্যা

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও সারা জীবন ধরে গণতন্ত্রের জন্য মানুষের

অধিকার আদায়ের জন্য সংগ্রাম করে যাচ্ছেন। ২০০৭ সালে যেদিন

বঙ্গবন্ধুকন্যাকে বন্দী করা হয়েছিল, সে দিন শুধু তাঁকেই নয়, গণতন্ত্রকেও

বন্দী করা হয়েছিল। শত্রুরা বার বার শেখ হাসিনাকে হত্যা করার চেষ্টা

করেছে, পারে নাই। যুদ্ধের পর বাংলাদেশ ছিলো অবহেলিত দেশ। এই দেশটাতে অনেকে ক্ষমতায় এসেছে, কিন্তু বর্তমানে যে উন্নয়ন হয়েছে তা আগে কখনো হয়নি। অবহেলিত বাংলাদেশ আজ উন্নত সমৃদ্ধে এগিয়ে যাচ্ছে। আগামী জাতীয় নির্বাচনে জনগণের ভোটে পুনরায় আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসবে, সেই প্রত্যাশা করেন তিনি। পরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সহ ১৫ আগস্টে তার পরিবারে নিহত সকল সদস্য শহীদের প্রতি আত্মার মাগফিরাত কামনা করা হয়। এছাড়াও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সহ সকলের সুস্বাস্থ্য কামনা করে দোয়া অনুষ্ঠিত হয়।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ বিভাগের আরও সংবাদ
© All rights reserved © 2020 Kushtiarkagoj
Design By Rubel Ahammed Nannu : 01711011640