1. nannunews7@gmail.com : admin :
May 27, 2024, 12:28 am
শিরোনাম :
উপকূলে ঘূর্ণিঝড়রিমালেরআঘাত আলমডাঙ্গায় ঘূর্ণিঝড় রিমালের প্রভাবে ঝোড়ো হওয়ার সঙ্গে বৃষ্টি, খোলা হয়েছে কন্ট্রোল রুম আলমডাঙ্গার বাঁশবাড়িয়া গ্রামে ঈদগাহ পূণনির্মাণ নিয়ে দুগ্রুপে চরম বিরোধ বাড়ি ঘর ভাঙচুর আলমডাঙ্গায় মিথ্যা অভিযোগ তুলে সংবাদ সম্মেলন করার প্রতিবাদে পাল্টা সংবাদ সম্মেলন কুষ্টিয়ার মিরপুরের ভেদামারীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে সংঘর্ষে-আহত-১০ কাঙ্খিত সেবা নেই, তবুও ইবির পরিবহন খাতে বছরে বিপুল ব্যয় ! মিরপুরে হাতের রগ কাটা কৃষি ব্যাংক কর্মচারীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার কুমারখালীতে নির্বাচনী সহিংসতায় আহত জয়নাবাদের তারিকের অবশেষে মৃত্ব্য হত্যাকান্ডঘটিয়েছে চেয়ারম্যান এনামুল হক মঞ্জুঃ আব্দুল মান্নান খান কুষ্টিয়ায় স্বাক্ষর জালিয়াতি কান্ডে সেই প্রতারক মীর সামিউল’র জামিন না মঞ্জুর, একদিনের রিমান্ড মিষ্টি আলু চাষ কৌশল

খোকসায় মাহবুবরের বাড়ীতে একুশে আগস্টে মায়ের কান্নায়  ভিজে যায় ঘড়ি

  • প্রকাশিত সময় Sunday, August 21, 2022
  • 105 বার পড়া হয়েছে

মনোজিত মন্ডল ,খোকসা প্রতিনিধি ॥ ২০০৪ সালে একুশে আগস্ট বঙ্গবন্ধু এভিনিউ ও আওয়ামী লীগের জনসভায়  মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তৎকালীন( বিরোধী দলীয় নেতার) দেহরক্ষী মাহাবুবুর রশিদ গ্রেনেড হামলায় গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যুবরণ করেন। মাহাবুবুর রশিদ  কুষ্টিয়ার খোকসা উপজেলায় জয়ন্তী হাজরা ইউনিয়নে ফুলবাড়িয়া গ্রামে ১৯৬৮  সালের ১৪ জুলাই জন্মগ্রহণ করেন। ২০০৪ সালের ২১ শে আগস্ট গ্রেনেড হামলায় নিহত হন। কুষ্টিয়ার  খোকসা উপজেলার বীর সৈনিক ল্যান্স কর্পোরাল মাহবুব ২১শে আগষ্ট শহীদ হন। আমরা খোকসাবাসী তার জন্য গর্বিত। বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত ল্যান্স কর্পোরাল মাহবুব। শেখ হাসিনার ৪০ জন নিরাপত্তারক্ষীর ভিতর চৌকষ অফিসার। গ্রেনেড বিস্ফোরনের পর পর নিরাপত্তা বলয় তৈরী করেন নেত্রী কে ঘিরে মোহাম্মদ তে ঝাঝরা হয়ে মাহবুবের পিঠ। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত মাহবুব কর্তব্য পালন করে গেছে। হামলার কিছুদিন আগে মাহবুবকে একটি ঘড়ি দিয়েছিলেন নেত্রী। কয়েকদিন ব্যবহার করে স্মৃতিস্বরূপ মায়ের কাছে রেখে দেন তার শহীদ সন্তান। আগষ্টের ২১আসলেই মা ঘড়িটি বুকে চেপে কেঁদে ওঠেন আর মাঝে মাঝে মূর্ছা যান। মাহবুব একজন আন সাং হিরো। যাদের বীরত্বগাথা লেখা হয় না। তার নামে কোন শহীদ স্মরণী নেই। কোন ভাষ্কর্য নেই। যাদের কথা কেউ মনে রাখে না। তারা পৃথিবী তে আসে কর্তব্য পালন করতে। তারপর তারা চলে যায়। তার পরিবার সূত্রে জানা যায় নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করার আমরা তার প্রতি কৃতজ্ঞ। তার মৃত্যুতে আমাদের একটু কষ্ট হয়নি কারণ সে সঠিকভাবে দায়িত্ব পালন করেছে। দেশের জন্য সে জীবন দিয়ে গেছে।  পরিবার থেকে জানানো হয় আজকের  দেশরতœ জননেত্রী শেখ হাসিনা। মাহাবুবুর তার  জীবন দিয়ে শেখ হাসিনার জীবন রক্ষা করে গেছেন। তবে পরিবারের একটি আশা-আকাঙ্ক্ষা রয়েছে। দেশরতœ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মাহবুবুর রশিদ এর কবর স্থান একবার জিয়ারত করে যেত তাহলে পরিবারের সকল ব্যাথা  নিরাশ হয়ে যেত।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ বিভাগের আরও সংবাদ
© All rights reserved © 2020 Kushtiarkagoj
Design By Rubel Ahammed Nannu : 01711011640