1. nannunews7@gmail.com : admin :
April 16, 2024, 6:52 am

গড়াই সেতুর উপর শিলাইদহ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থীর লাশ

  • প্রকাশিত সময় Wednesday, July 14, 2021
  • 105 বার পড়া হয়েছে

কাগজ প্রতিবেদক ॥ কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলা অংশে গড়াই নদীর উপর মীর মোশাররফ হোসেন সেতুর উপর এক নাসির উদ্দিন বিশ্বাস (৪৯) নামে এক চেয়ারম্যান প্রার্থীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে উপজেলার লাহিনীপাড়া এলাকার মীর মোশাররফ হোসেন সেতুর উপর থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। নিহত নাসির উদ্দিন বিশ্বাস উপজেলার শিলাইদহ ইউনিয়নের নাউতি গ্রামের ইয়াকুব আলীর ছেলে। তিনি ইটভাটা ও বালু মহালের ব্যবসা করতেন। নিহতের পরিবারের দাবি, দীর্ঘদিন প্রভাবশালীদের দখলে থাকা বালুমহাল ও খেয়াঘাট ইজারা নিয়ে দখলমুক্ত করায় ক্ষিপ্ত ছিল প্রতিপক্ষরা। এছাড়া চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে মাঠে নামায় একপক্ষের সঙ্গে তার বিরোধ চলছিল। এসব কারণে আগেও তার ওপর হামলার চেষ্টা করা হয়েছে। তবে পুলিশের দাবি সড়ক দুর্ঘটনায় তার মৃত্যু হয়েছে। নিহত নাসিরের ভাই বশির উদ্দিন বিশ্বাস বলেন, শিলাইদহে তার ভাইয়ের এনএসবি নামে একটি ইটভাটা রয়েছে। চলতি জুলাই মাসে শিলাইদহ খেয়াঘাট ও শিলাইদহ বালুমহল ইজারা নেন। এই দুইটি বালুমহাল একজন প্রভাবশালী ১৮ বছর দখল করে রেখেছিলেন। তার ভয়ে কেউ সিডিউল জমা দিতে সাহস পায়নি। এবার আমার ভাই সাহস করে ঘাট দুইটি সরকারের কাছ থেকে ইজারা নিয়েছিলেন। শিলাইদহ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দীতা করতে এলাকায় গণসংযোগ চালিয়ে আসছিলেন তিনি। এসব কারণে ভাইয়ের সঙ্গে প্রতিপক্ষের বিরোধ চলে আসছিল। মঙ্গলবার রাতে শিলাইদহ থেকে শহরের হাউজিং এলাকায় নিজ বাসার উদ্দেশে রওনা হন। রাতে নাসিরের ফোন থেকে এক পথচারী বাড়িতে জানান, নাসির দুর্ঘটনায় পড়েছেন। সংবাদ পেয়ে তাকে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান, তিনি আগেই মারা গেছেন। বশির উদ্দিন দাবি করেন, তার ভাই নাসিরের সড়ক দুর্ঘটনায় মারা যাওয়ার কোনো আলামত নেই। শুধু মাথায় ও বুকে আঘাতের চিহ্ন আছে। তাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে।  ঘটনার সুষ্ঠু তদন্তের দাবি করে তিনি বলেন, হত্যা মামলার এজাহার দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। নিহতের ছেলে রাকিবুল ইসলাম বলেন, আমার বাবা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী ছিলেন। এছাড়া শিলাইদহ ঘাট ও বালুমহাল এবার বাবাই ইজারা পেয়েছিলেন। এ নিয়ে পরিকল্পিতভাবে তাকে হত্যা করা হয়েছে। তিনি বলেন, কয়েক মাস আগেও তার ওপর হামলার চেষ্টা করা হয়েছিল। ওই সময় তিনি অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে যান। কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) আশরাফুল আলম জানান, হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই নাসির উদ্দিনের মৃত্যু হয়েছে। রাত সোয়া ১১টার দিকে তাকে হাসপাতালে আনা হয়। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পাওয়ার পর মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। তবে তার বুক ও মাথায় জখমের দাগ রয়েছে বলে জানান তিনি। কুমারখালী থানার ওসি কামরুজ্জামান তালুকদার বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে নাসির উদ্দিন সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন। পরিবারের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে লাশের ময়নাতদন্ত করা হচ্ছে। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে প্রকৃত কারণ জানা যাবে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ বিভাগের আরও সংবাদ
© All rights reserved © 2020 Kushtiarkagoj
Design By Rubel Ahammed Nannu : 01711011640